মাইক্রেওয়েভ ওভেন

মাইক্রোওয়েভ ওভেনের ব্যবহার

১) মাইক্রোওয়েভ ওভেন থেকে কোন রান্না করা জিনিস বের করার সময় সব সময় ঢাকনা দিয়ে ঢেকে বের করবেন তা না হলে রান্নার গরম ভাপ আপনার হাতে মুখে লাগতে পারে।

২) ডিম সিদ্ধ করার সময় ডিমের খোসা ছিদ্র করে মাইক্রোওয়েভ ওভেনে দিতে হবে তা না হলে ডিম ফেটে চারিদিকে ছড়িয়ে পড়তে পারে।

৩) কিছু খাবার আছে যেমন আস্ত আলু, সসেজ এই ধরনের খাবার মাইক্রোওয়েভ ওভেনে রান্নার আগে কাঁটা চামুচ দিয়ে একটু ফুটো করে দেবেন তা না হলে এই ধরনের জিনিসগুলো ফেটে যেতে পারে।

৪) মাইক্রোওয়েভ ওভেনে রান্না করার সময় কয়েক রকমের খাবারের জিনিস একসাথে রান্না করলে সবকিছু একসাইজের করে কাটা উচিৎ। তাহলে সব কিছু একই সময়ে সিদ্ধ হবে।

৫) মাইক্রোওয়েভ ওভেনে তাড়াতাড়ি রান্না করার জন্য গোল বাটি দরকার।

৬) বাংলাদেশী রান্না করতে বেশি সময় লাগে মাইক্রোওয়েভ ওভেনে।

৭) চর্বিযুক্ত খাবার ও চিনির খাবার সাধারণত মাইক্রোওভেনে তাড়াতাড়ি রান্না করা যায়।

৮) মাইক্রোওভেনে কোন খাবার গরম করতে হলে তা সব সময় ঢেকে গরম করতে হয় বিশেষ করে তরল জাতীয় খাবার হলে তা না হলে মাইক্রেওয়েভ ওভেন মেখে য়েতে পারে।

৯) মাইক্রোওয়েভ ওভেনে যেকোন ধরনের ডিম ভাজি করতে পারেন।

১০) বড় কোন কিছু মাইক্রোওভেনে রান্না করলে তা একবার উল্টে দিলে ভাল হয় যেমন আস্ত মুরগির রোস্ট।

১১) মাইক্রোওয়েভ ওভেনে রান্নার সময় কাচের চামচ ব্যবহার করবেন।

১২) মাইক্রোওয়েভ ওভেনে রান্না করার সময় এমন ডিশে রান্না করুন যেগুলো মাইক্রোওয়েভ প্রুফ অর্থাৎ মাইক্রোওয়েভে রান্নার জন্য বিশেষভাবে তৈরি করা। ডিশ মাইক্রেওয়েভ প্রুফ কিনা জানতে ডিশের নিচের লেখা দেখুন।

১৩) মাইক্রোওভেনে রান্না করার সময় খেয়াল রাখতে হবে ডিশ যেন মাইক্রোওভেনের চেয়ে ছোট হয়।

১৪) ফ্রিজ থেকে কিছু বের করে রান্না করতে বেশি সময় লাগে। টাটকা জিনিস দিয়ে রান্না করতে কম সময় লাগে।

১৫) আস্ত কোন কিছু মাইক্রোওভেনে দিয়ে রান্না করতে বেশি সময় লাগে। টুকরো করে কেটে দিলে কম সময় লাগে।

১৬) মাইক্রোওয়েভ ওভেনে কম পরিমাণ জিনিস রান্নার জন্য কম সময় এবং বেশি পরিমাণ জিনিস রান্নার জন্য বেশি সময় লাগে।

১৭) প্রথমে নতুন রাঁধুনি হিসেবে মাইক্রোওয়েভ ওভেনে রান্না করার সময় রেসিপি অনুযায়ী রান্না করা উচিৎ। তারপর অভিজ্ঞতা হয়ে গেলে আপনার নিজস্ব মাইক্রোওয়েভ ওভেনে আপনার নিজস্ব রেসিপি অনুযায়ী রাঁধুন দেখবেন কোন সমস্যা হবে না।

১৮) মাইক্রোওয়েভ ওভেনে তরল কোনকিছু রান্না করার সময় একটু ডিপ বাটি ব্যবহার করবেন যেমন স্যুপ।

১৯) মাইক্রোওয়েভ ওভেনে কাঁচামরিচ সবসময় কেটে দিবেন তা না হলে ফেটে যাবে।

২০) আপনার মাইক্রোওয়েভ ওভেনটি আপনার রেডও টেলিভিশন সেট থেকে যতটা সম্ভব দূরে রাখুন। কারণ মাইক্রোওয়েভ ওভেন রেডিও ও টিভির সিগনাল পেতে বাধা দেয়।

২১) স্যুপ ও ওসবজি রান্না করার সময় ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দিন তাতে পানি শুকিয়ে যাবে না বা ছিটকে যাবে না। কিন্তু শুকনো খাবার যেমন কেক ঢেকে রান্না করবেন না।

২২) মাইক্রোওয়েভ ওভেন পরিস্কার করার সবচেয়ে সহজ উপায় হলো: একটি বাটিতে ওভেনে ২ মিনিট পানি গরম করে নিন। গরম পানির বাষ্প সমস্ত মাইক্রোওয়েভ ওভেনে ছড়িয়ে গেলে তখন ওভেন বন্ধ করে দিবেন এবং বাটিটি বের করে একটি পরিষ্কার কাপড় দিয়ে মুছে নিন। তাহলে মাইক্রোওয়েভ ওভেনের ভিতর একেবারে পরিষ্কার হয়ে যাবে।

২৩) মাইক্রোওয়েভ ওভেন ব্যবহারের পরপরই ট্রেটা মুছে রাখুন তাহলে ওভেন পরিষ্কার থাকবে।


Leave Comment

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

কপিরাইট ২০১৯© allbanglarecipes.com সর্বাধিকার সংরক্ষিত।

Subscribe To Our Newsletter

Join our mailing list to receive the latest news and updates from our team.

আপনি সফলতার সাথে সাবসক্রাইব করেছেন, ধন্যবাদ।